শনিবার, ২০ অগাস্ট ২০২২, ০৬:১২ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম
আহলে বায়াত ও সাহাবাদের প্রতি পূর্ণ আনুগত্যই সুন্নিয়তের মাপকাঠি   সোমবার ৪ দিনের সফরে কিশোরগঞ্জ যাচ্ছেন রাষ্ট্রপতি কারবালার চেতনায় ইনসাফভিত্তিক মানবিক সমাজ গড়তে হবে সময়ের অপেক্ষা, হাসিনার লোকজনও আন্দোলনে চলে আসবে-আমীর খসরু সবচেয়ে বড় রিজিওনাল সিডস ফর দ্যা ফিউচার প্রোগ্রাম উদ্বোধন করলো হুয়াওয়ে শান্তির দেশে সাম্প্রদায়িক উসকানিদাতাদের ব্যাপারে সতর্ক থাকতে হবে -তথ্যমন্ত্রী আট মাসের মধ্যে জ্বালানি তেলের দাম সর্বনিম্ন সাংবাদিক নির্যাতনকারী আইনজীবীদের সনদ বাতিল ও গ্রেফতার দাবি ফিলিস্তিন, মিয়ানমারের দিকে নজর দিন, অগ্নিসন্ত্রাসের শিকারদের কথা শুনুন: তথ্যমন্ত্রী ১৫ আগস্ট জাতির পিতাকে হত্যা করলেও ঘাতকেরা তাঁর আদর্শকে হত্যা করতে পারেনি

“একমূখী শিক্ষা চালু করা না গেলে একীভূত শিক্ষা ব্যবস্থা বাস্তবায়ন সম্ভব নয়”

শিক্ষায় প্রযুক্তির ব্যবহার বাড়াতে হবে। আজকের ওয়ার্কশপে কাগজ-কলমের ব্যবহারের মাধ্যমে যে উপস্থাপনা করা হলো তা যদি কম্পিউটারে পাওয়ার পয়েন্টের মাধ্যমে করা যেত তবে অনেক বেশি সহজ ও আধুনিক হতো। আধুনিকতার ছোঁয়া থাকতো। আপনাদেরও শিক্ষায় পাঠ দানে আধুনিক হতে হবে, সবাইকে আপ-টু ডেট হতে হবে। একমূখী শিক্ষা চালু করা না গেলে একীভূত শিক্ষা ব্যবস্থা বাস্তবায়ন সম্ভব হবে না। বর্তমানে মাদ্রাসা শিক্ষায় অনেক বই চাপিয়ে দেওয়া হয়েছে। আমার যুক্তি হচ্ছে বই থাকলেই পরীক্ষার বাধ্যবাধকতা তুলে দিতে হবে, পড়তে তো কোন সমস্যা নাই।

গত ২০ জুলাই ২০২২ সকাল ১০ ঘটিকা  SDG4SF, ESP এবং  8th FYP  -এ শিক্ষা সেক্টর সম্পর্কে নির্দেশিত নীতি ও কৌশল সম্পর্কিত দক্ষতা বৃদ্ধির মাধ্যমে সরকারের যথাযথ উদ্যোগ গ্রহণ ও কর্ম প্রক্রিয়া গ্রহণে সহায়তা করার উদ্দেশ্য নিয়ে গণসাক্ষরতা অভিযান ও ইউনেস্কো ঢাকা অফিসের আয়োজনে এবং স্থানীয় আয়োজক সংস্থা জেএসইউএস’র ব্যবস্থাপনায় নগরীর সার্কিট হাউজ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত এ্যকশন প্লান ওয়ার্কশপে চট্টগ্রাম বিভাগের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (উন্নয়ন) জনাব মোহাম্মদ মিজানুর রহমান (যুগ্ম সচিব) প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত মন্তব্য রাখেন।

অনুষ্ঠানের প্রথম অংশে স্বাগত বক্তব্য রাখেন জেএসইউএস নির্বাহী পরিচালক ইয়াসমীন পারভীন এবং ইউনেস্কো ঢাকা অফিসের প্রোগ্রাম অফিসার শিরিন আক্তার। এরপর চট্টগ্রাম বিভাগের শিক্ষাখাতে মূল লক্ষ্য অর্জনের প্রতিফলন নিয়ে বক্তব্য রাখেন ড. মো: শফিকুল ইসলাম, বিভাগীয় উপপরিচালক (প্রাথমিক শিক্ষা) এবং প্রফেসর হোসাইন আহমেদ আরিফ এলাহী, পরিচালক, আঞ্চলিক কার্যালয়, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর, চট্টগ্রাম।

জেএসইউএস ব্যবস্থাপনা উপদেষ্টা ও পরিচালক কবি সাঈদুল আরেফীনের সঞ্চালনায় দু-পর্বে অনুষ্ঠিত কর্মশালার প্রথম পর্বে, মূল উদ্দেশ্যকে সামনে রেখে পাওয়ার পয়েন্ট প্রেজেন্টেশান উপস্থাপন করেন সাবেক সচিব জনাব শ্যামল কান্তি ঘোষ, কনসালটেন্ট ড. জিয়াউস সবুর এবং গণসাক্ষরতা অভিযানের ডেপুটি ডিরেক্টর কে.এম. এনামুল হক।

কর্মশালার দ্বিতীয় পর্বে দলভিত্তিক কাজে প্রাথমিক মাধ্যমিক এবং মাদ্রাসা ও কারিগরী শিক্ষায় সমস্যা, সম্ভাবনা এবং উত্তোরণের উপায় নিয়ে দলীয় উপস্থাপনা করা হয়। জনাব মো: আবু রায়হান দোলন চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি)-এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত ওরিয়েন্টশন ওয়ার্কসপে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, রুজিনা সুলতানা, উপ-সচিব, কারিগরি ও মাদ্রাসা শিক্ষা এবং চৌধুরী সামিয়া ইয়াসমিন, উপ-সচিব, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগ, শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

আয়োজিত কর্ম পরিকল্পনা প্রণয়ন কর্মশালায় উপস্থিত ছিলেন, প্রাথমিক ও মাধ্যমিক শিক্ষার চট্টগ্রাম বিভাগের সরকারী কর্মকর্তা, শিক্ষক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ, শিক্ষাবিদ, গবেষক, সাংবাদিক, বিদ্যালয় ও মাদ্রাসার শিক্ষক, ব্যবস্থাপনা কমিটির সদস্য, উন্নয়ন সংগঠনের প্রতিনিধিবৃন্দসহ ইউনেস্কো ঢাকা অফিস এবং গণসাক্ষরতা অভিযান এবং জেএসইউএস’র কর্মকর্তাবৃন্দ।

খবরটি অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved dainikshokalerchattogram.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com