বুধবার, ০৬ জুলাই ২০২২, ১২:৩০ অপরাহ্ন

শিরোনাম
চুয়েটে আজ উদ্বোধন হচ্ছে দেশের প্রথম আইটি বিজনেস ইনকিউবেটর আজ অধ্যাপক মোহাম্মদ খালেদ-এর জন্মশতবার্ষিকী বিএনপি’র আন্দোলনের হুমকি নিয়ে আমাদের মাথা ব্যথা নেই: ওবায়দুল কাদের চামড়ার মূল্য নির্ধারণ সব কারাগার ও থানায় বায়োমেট্রিক পদ্ধতি চালু করতে হাইকোর্টের রায় মক্কা নগরীতে হজ্জ মেডিকেল সেন্টার পরিদর্শন করেছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী সময়োপযোগী পরিবর্তনকে ধারণ করে পোশাক মালিকরা সমৃদ্ধ দেশ গঠনে অবদান রাখবে : স্পিকার অধিক ফসল উৎপাদন করার ও বিদ্যুৎ ব্যবহারে সাশ্রয়ী হবার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর জনগণের ভোটাধিকার রক্ষায় কাজ করছে সরকার: প্রধানমন্ত্রী চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতালে আন্তর্জাতিক বৈজ্ঞানিক সম্মেলন ৭ জুলাই

রনি,সোলস এবং আমি


মউদুদুল আলম:

রনি চট্টগ্রাম কলেজিয়েট স্কুল এর ছাত্র ছিল । ১৯৭১-এ এস,এস,সি, । আমি ওর দুই বছরের পরে । আমাদের স্কুলের যত সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হত তাতে হারমনিয়াম বাজাত সাজেদ , রনি তবলা , আমি গান করতাম । এইভাবে আমাদের মাঝে সখ্যতা । সাজেদ হয়ে উঠে ওর প্রিয় বন্ধু । আমাদের আর এক স্কুল বন্ধু মঈন সাজেদকে পরিচয় করিয়ে দেয় তার এক চাচা লুলুর সাথে । লুলু সাজেদকে ওর বাসায় নিয়ে যায় । তার সংগ্রহের বাদ্যযন্ত্রসমূহ দেখায় । লুলুর বাসায় ভাড়া থাকত রনিরা । এতে সাজেদ,রনি ও লুলু একটি ব্যান্ড করার প্রয়াস পায় । সাজেদ এর অনেকদিনের স্বপ্ন একটা গ্রুপ করার । যা লাইটিং’ কে দেখে মাথায় আসে । তাঁরা সুরেলা নাম দিয়ে শুরু করে । নামকরণ করে আমার জেঠা সাহিত্যিক মাহবুবুল আলম । এটা ১৯৭৪-এর প্রথম দিকের কথা। পরে নাম পরিবর্তন করে রাখা হয় ‘সোলস’। এই নামকরণে সহযোগিতা করে ফরিয়াদ । তখন বাদ্যযন্ত্র বেঞ্জ,হাওইয়ান গিটার,বঙ্গ,কঙ্গ ও মারাক্কশ । রনি বাজাতো কঙ্গ । লুলু হাওইয়ান গিটার । একটা একোডিয়ন ছিল । তা বাজাতো সাজেদ । আমার ছোট ভাই তওহিদ বঙ্গ বাজাতো । তওহিদ সাজেদ-এর রিক্রুদ । এই লাইনআপ নিয়ে ‘সোলস’ চিটাগাং ক্লাব- এ বাজায় । সোলসএর প্র্যাকটিস হতো সাজেদএর বাসায় । তখন সদ্য ব্যান্ড মিউজিকের সাথে পরিচিত হচ্ছি । ইংরেজি গান তখনও যোগ হয় নি ।
রনির চমকপ্রদ ব্যবহার ও হাসি সোলসকে এগিয়ে যেতে বেগবান করেছে । সাজেদ ও রনির আন্তরিক বোঝাপড়া সোলস পায় মজবুত বুনিয়াদ । এই ঘটনাগুলু আমার চোখের সামনে হল । হয়ত আবার আরও লিখব । আমার অনেক সুযোগ হয়েছে রনির সাথে ঘুরবার । দেশের বিভিন্ন জায়গায় । সবসময় রনি আমাকে খোঁজখবর নিত । শেষবার সিলেটে ওল্ড সোলস বাজাল । লাইনআপ ছিল রনি,তাজু,তপন,নেয়াজ, র‍্যালি,আলি,হিমু । সারা রাত অনুষ্ঠান । আমি ছবি তুললাম অনেক । রনি বলেছিল ছবিগুলু দিতে । আর দেয়া হয় নাই । সেই ছবি । অনেক কথা । রনি চলে গেলো । ছবি কাকে দেব । জানি না । ক্যান্সার হওয়ার পর ফোন করেছিলাম । বলল- এতদিন পর ! ভাষা ছিল না – উত্তর দিবার ।প্রতিদিন রনিকে খুব মনে পড়ে । আমাদেরকে এতিম করে চলে গেলো । আমি জানি সাজেদ ও লুলুর খুব খারাপ লাগবে ।

ফেসবুক থেকে সংগৃহীত

খবরটি অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved dainikshokalerchattogram.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com