শনিবার, ২১ মে ২০২২, ০৩:৩০ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম
চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্র ছাত্রীদের ঈদ আনন্দ মেলা সম্পন্ন বৈশ্বিক সংকট মোকাবিলায় প্রধানমন্ত্রীর ৪ প্রস্তাব ১২০ ভরি সোনা হয়ে গেলো মাদক, চাকরি হারালেন সেই এসপি আজ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় এলামনাই এসোসিয়েশনের ঈদ আনন্দ উৎসব সকল ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করে আওয়ামী লীগ বিজয়ের বন্দরে পৌঁছাবে : ওবায়দুল কাদের চট্টগ্রাম টেস্ট ড্র কিংবদন্তী সাংবাদিক আব্দুল গাফফার চৌধুরীর মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক প্রবীণ ভাষাসৈনিক আব্দুল গাফফার চৌধুরী লন্ডনে মারা গেছেন চসিক ভারপ্রাপ্ত মেয়র সাথে চীনের সিএনটি ওয়াই ও এলডিসি প্রতিনিধির সাক্ষাত চট্টগ্রামের ছেলে ইভান প্রথম আলো-মেরিল সেরা গায়ক বিভাগে চূড়ান্ত মনোনয়ন পেয়েছে

৫ঋণ খেলাপীর দেশত্যাগে নিষেধাজ্ঞা

মের্সাস আলি এন্টারপ্রাইজ এর মোহাম্মদ আলী ,আব্দুল করিম ,আলী ইমাম ,মোছাম্মৎ বলকিজা খাতুন,  জেবুন্নেসা আক্তারকে দেশত্যাগে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছেন চট্টগ্রাম অর্থঋণ আদালতের যুগ্নজেলা জজ  মুজাহিদুর রহমান ।আজ এই আদেশ দেন।

অর্থঋণ মামলা নং ২১/২০১২  বাদী আইএফআইসি ব্যাংক আগ্রাবাদ শাখা বনাম বিবাদী মের্সাস আলি এন্টারপ্রাইজ, ফাহিম ম্যানসন আনন্দরকিল্লা।প্রোপাইটর   মোহাম্মদ আলী ,আব্দুল করিম ,আলী ইমাম ,মোছাম্মৎ বলকিজা খাতুন,  জেবুন্নেসা আক্তার ব্যাংকের দাবি ৬১ কোটি ৩ লক্ষ ৩১ হাজার ৬২৩ টাকা পরিশোধ না করায় বিবাদীদের  দেশত্যাগে  নিষেধাজ্ঞা প্রদান করে চট্টগ্রাম অর্থঋণ আদালতের যুগ্নজেলা জজ  মুজাহিদুর রহমান । ২-৬ নং বিবাদীকে তাদের পাসপোর্ট আগামী ৩১/০১/২০২২ খ্রিঃ তারিখের মধ্যে আদালতে জমা প্রদান করার নির্দেশ দেন আদালত । ৩১/০১/২০২২ খ্রিঃ তারিখের মধ্যে বিবাদীগণ যেন দেশত্যাগ করতে না পারে তার প্রয়োজনীয় ব্যবস্হা গ্রহণের জন্যে   অতিরিক্ত আইজিপি বিশেষ শাখা বাংলাদেশ পুলিশ বরাবরে কপি প্রেরণের  করার নির্দেশ দেন। আদেশ নং-৯২ তারিখ ২৫/০১/২০২২ইং।এই তথ্য নিশ্চিত করেন অর্থঋণ আদালতের বেঞ্চ সহকারী রেজাউল করিম।

আদালত সুত্রে জানা যায়, বিবাদীর বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে ১ ডজনেরও বেশি অর্থঋণ ও  অর্থঋণ জারি মামলা চলমান আছে । উক্ত মামলা সমূহে বিবাদীর কাছ থেকে বিভিন্ন ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের দাবীকৃত খেলাপী ঋণের পরিমান প্রায়  হাজার কোটি টাকা । বিবাদীগণ দেশ থেকে বিপুল পরিমাণ অর্থ পাচারের অভিযোগ রয়েছে । বিবাদীগণ দেশ ত্যাগ করার কারণে ব্যাংকের বিপুল পরিমাণ খেলাপী ঋণ আদায় অনিশ্চিত হয়ে পড়ে । বিবাদীদের বেশ কয়েকটি ফৌজদারী মামলায় সাজা হওয়ায়  আত্মগোপনে আছেন । বিবাদীগণ যদি অর্থ পাচারকারী পি কে হালদারদের ন্যায় দেশ ছেড়ে চলে যায় তবে তাঁদে কাছে প্রাপ্য বিপুল পরিমাণ পাবলিক মানি আদায় করা অসম্ভব হয়ে পড়বে ।

খবরটি অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved dainikshokalerchattogram.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com