বৃহস্পতিবার, ২১ অক্টোবর ২০২১, ০৮:৩০ পূর্বাহ্ন

কিছুটা অন্যমনস্কতায়, কিছুটা অবহেলায়

পুরবী দাশ

একসময় রোজ যে নম্বরে ডায়াল করে কথা হতো ঘন্টার পর ঘন্টা,,,,,
তুচ্ছ অভিমানে ডায়াললিস্টের প্রথম সারি থেকে নম্বরটা
ধাপে ধাপে নিচে নামতে নামতে একটা সময় বিলীন হয়ে
নিশ্চিহ্ন হয়। কথা বলতে চাওয়ার যে তীব্রতা তাতেও
সময়ের সাথে সাথে ধীরেধীরে পড়ে ভাটা।

যুগের সাথে তাল মিলিয়ে হাতের সেই ছোট্ট দূরালাপনির মডেল চেন্জ হয়, নানা ব্যস্ততায়,
কিছুটা অন্যমনস্কতায়, কিছুটা অবহেলায়
ঠোঁটস্থ থাকা সেই নম্বরটা নতুন ফোনে অার করা হয় না সংরক্ষণ,,, চোখের তারায় সেভ করা নম্বর মালিকের মুখটাও বিবর্ণ হতে হতে একসময় যায় মিলিয়ে,,,

দিন কাটতে থাকে,,,,,,কেটে যায় সপ্তাহ পক্ষ মাস বছর

তারপর হয়ত একদিন,,,,,,,,

ঝিরিঝিরি বর্ষন মূখর বিষন্ন কোন সন্ধ্যায়, হঠাত্ মনের মাঝে বিদ্যুৎ এর চমকের মতন সেই প্রিয় মুখের একটা ঝলক য উঁকি দিয়ে যায়,,,,বুকের ভেতর তীব্র হাহাকার গুমড়ে উঠে গলার কাছটায় দলা পাকিয়ে বলে,, কেন করা হলো না??,,,একটা ফোনকলই তো ,,,,, কেন??

সামনে রাখা ধুমায়িত কফির কাপটা ধোঁয়া বিলোতে বিলোতে হয়ে যায় ধোঁয়াহীন।

,,
হাতে উঠা অাসা নতুন মডেলের ফোনটার অাতিপাতি খুঁজেও কোথাও পাওয়া যায় না সেই নম্বরের অস্তিত্ব।
ব্রেইনে সেভ থাকা সেই নম্বরের কয়েকটা ডিজিটই যে গেছে হারিয়ে
সেই মনে না পড়া নম্বরের মানুষটির জন্য কষ্টের অাতিশয্যে বহুকাল যোগাযোগ না রাখা বন্ধুমহলের ফোনগুলো বেজে উঠে, কথা হয় নানান বিষয়ে,,, শুধু

শুধু অার বলা হয়ে উঠে না
সেই নম্বরের কথা।

খুজঁতে খুঁজতে অযত্নে অবহেলায় ফেলে রাখা পুরোনো ডাইরির এককোণায় হয়ত পাওয়া যায় অাকাঙ্খিত সেই নম্বর,,,
তারপর বেড়ে যাওয়া প্রচন্ড হার্ট বিট নিয়ে নম্বরটা ডায়াল করে শুনতে পাওয়া

অাপনার ডায়ালকৃত নম্বরটি এখন অার ব্যবহৃত হচ্ছে না,,,

একবার
দুবার
তিনবার
অার জানা হয় না কেমন অাছে, কোথায় অাছে, সেই প্রিয়মুখের প্রিয়জন??,,,,,সে ও কি পৃথিবীর কোন প্রান্তে বসে এমনি করে ভাবছে তার কথা???
বাইরে তখনও ঝিরিঝিরি একনাগাড়ে ঝরে পড়া একঘেয়ে বৃষ্টি, বুকের গভীর থেকে বেরিয়ে অাসা দীর্ঘশ্বাসে
ব্যলকনিতে বারবার বাতাসে ছিটকে অাসা বৃষ্টির জলের সাথে মিশে একাকার হয় দুফোঁটা নোনাজল,,,,

তারপর,,,সেই বিষন্ন রাত সকাল হয়,, কর্মব্যস্ততায় নম্বরটা ডায়ালকল লিস্টের


৩ নিচে নামতে নামতে একসময় অাবার হারিয়ে যায়,,,
শুধু রেখে যায় প্রিয়মানুষের জন্য অব্যক্ত যন্ত্রণাময় একটি বিষন্ন বিকেলের গল্প।

হারানো ভালোবাসাগুলো এভাবেই বেচেঁ থাকুক স্মৃতিতে, অথবা,,,,
বিস্মৃতিতে,,,,

ফেসবুক থেকে সংগ্রহীত


খবরটি অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved dainikshokalerchattogram.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com